নওগাঁয় কৃষকের ১২০টি বলসুন্দরী বরই গাছ উপড়ে ফেলেছে দৃর্বৃত্তরা

নওগাঁয় কৃষকের ১২০টি বলসুন্দরী বরই গাছ উপড়ে ফেলেছে দৃর্বৃত্তরা


পত্নীতলা প্রতিনিধি ঃ নওগাঁর পত্নীতলার নির্মইল ইউনিয়নের ছোট বিদিরপুর উত্তরপাড়া গ্রামের কৃষক আবুল কাশেমের বাগানে দূর্বৃত্তরা ১২০টি বলসুনন্দরী জাতের বরই গাছ উপড়ে ফেলে দেয়ার অভিযোগ উঠেছে। বিষয়টি নিয়ে ভুক্তভোগি কৃষক থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন। অভিযোগের পর পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
পত্নীতলা থানায় লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, রেকর্ড ও পৈত্তিক সূত্রে প্রাপ্ত ৩১ শতাংশ জমিতে বল সুন্দরী জাতের ১২০টি বড়ই গাছ রোপন করে ছোট বিদিরপুর গ্রামের কৃষক আবুল কাশেম। গাছগুলো বেশ লকলকে হয়ে উঠেছিল। গত শনিবার সকালে একই গ্রামের আফাজ উদ্দিনের ছেলে আরিফ হোসেন তার অপর দুইভাইসহ প্রায় ১২/১৪জন ওই জমিতে প্রবেশ করে বরই গাছগুলো উপুড়ে ফেলে। এতে কৃষক আবুল কাশেমের প্রায় ৫০ হাজার টাকা ক্ষতি হয়। ওইদিন বিকেলে কৃষক আবুল কাশেম বাদী হয়ে পতœীতলা থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। 
নির্মইল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ বলেন, প্রায় তিন মাস পূর্বে ওই জমি নিয়ে একটি সালিশী বৈঠক ডাকা হয়। উভয় পক্ষ বৈঠকের সিন্ধান্ত মেনে নেয়। তারপর হঠাৎ করে কেন আবার গাছ উপরে ফেলা হলো বিষয়টি ভাবার রয়েছে। পত্নীতলা থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) খায়রুল ইসলাম বলেন, অভিযোগের প্রেক্ষিতে ওই কৃষকের জমি পরিদর্শন করা হয়েছে। রবই গাছ উপড়ে ফেলার সত্যতা পাওয়া গেছে। তদন্ত প্রক্রিয়া শেষে আইনানূগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।